কলাপাড়ায় পাঠদানের সময় স্কুলে ঢুকে মদ্যপায়ীর হামলা

2

সোলায়মান পিন্টু,কলাপাড়া প্রতিনিধিঃ পটুয়াখালীর কলাপাড়ায় স্কুলে পাঠদানের সময় মদ্যপ অবস্থায় শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের ওপর হামলা চালিয়ে আহত করার ঘটনায় জুনায়েত বয়াতি দুলু (২০) নামের এক যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। হামলায় শিক্ষক-শিক্ষার্থীসহ আট জন আহত হয়েছে। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে জুনায়েত বয়াতি দুলুকে গ্রেফতার করায় পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়। গতকাল বুধবার বিকালে কলাপাড়া পৌরশহরের নাচনাপাড়া এলাকার মর্ণিং সান প্রি-ক্যাডেট স্কুলে এ ঘটনাটি ঘটে।

স্কুলে হামলার ঘটনায় স্কুলের প্রধান শিক্ষক আল-আমিন হোসেন মিলন বাদি হয়ে বুধবার সন্ধ্যায় দুলুকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করে। মাতাল জুনায়েতের হামলায় ওই স্কুলের শিক্ষক সোহাগ দেওয়ান, শামিম মিয়া, জলিলুর রহমান, পঞ্চম শ্রেনীর শিক্ষার্থী ঋতু, অস্টম শ্রেনীর শিক্ষার্থী মিতা, শিহাব, দশম শ্রেনীর শিক্ষার্থী সোয়েব, কাইয়ুম আহত হয়। আহতদের মধ্যে শিক্ষক সোহাগ দেওয়ানকে কলাপাড়া হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

শিক্ষক আল-আমিন হোসেন জানান, বিকালের দিকে যখন স্কুলে ৬ষ্ঠ থেকে ১০ম শ্রেনী পর্যন্ত শিক্ষার্থীদের কোচিং চলছিলো তখন জুনায়েত হোসেন দুলু মদপান করে নেশাগ্রস্ত হয়ে বিদ্যালয়ের ভিতর ঢুকে পরে। একটি লাঠি নিয়ে বিদ্যালয়ের অস্টম এবং ১০ম শ্রেনীর কোচিং রুরে ঢুকে শিক্ষক সোহাগ দেওয়ানের ওপর হামলা চালায়। এসময় শিক্ষককে রক্ষা করতে শিক্ষার্থীরা এগিয়ে এলে শিক্ষার্থীদের ওপর হামলা চালায়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে দুলুকে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে আসে।

এ ব্যাপারে কলাপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জি.এম শাহ নেওয়াজ বলেন, অভিযুক্তকে গ্রেফতার করা হয়েছে। স্কুলে হামলার পর পুলিশের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে রয়েছে। অভিযুক্তের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করা হচ্ছে।