কুয়াকাটায় ছাত্রলীগ কর্মীকে কুপিয়ে হত্যা চেষ্টার অভিযোগ: গ্রেফতার ১

1

 

গোফরান পলাশ, কলাপাড়া বিশেষ প্রতিনিধি: কুয়াকাটার নয়াপাড়া গ্রামে রাসেল নামের এক ছাত্রলীগ কর্মীকে উপর্যুপরি কুপিয়ে জখম করা হয়েছে। শুক্রবার রাত আনুমানিক তিনটার দিকে ভাড়াটে সন্ত্রাসী কাশেম গাজীর নেতৃত্বে এ সশস্ত্র হামলার ঘটনা ঘটে। এসময় ছাত্রলীগ কর্মী রাসেলের আর্তচিৎকারে স্থানীয়রা ভাড়াটে সন্ত্রাসী কাশেমকে আটক করে গনধোলাই দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করে এবং আহত ছাত্রলীগ কর্মী রাসেলকে প্রথমে কলাপাড়া হাসপাতালে নেয়া হলে তার অবস্থা সঙ্কটাপন্ন হওয়ায় তাকে বরিশাল শে.বা.চি.ম হাসপাতালে উন্নত চিকিৎসার জন্য প্রেরণ করা হয়েছে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ঘটনার দিন রাতে ভাড়াটে সন্ত্রাসী কাশেম ও তার দুই সহযোগী মিলে রাসেলের বাসার পেছনের দরজা ভেঙ্গে এ সশস্ত্র হামলা চালায়। রাসেলের নাক-কান, পিঠ ও বুকে কোপের আঘাতে গুরুতর জখম হয়েছে। রাসেলের আর্তচিৎকারে স্থানীয়রা কাশেমকে আটক করলেও তার সহযোগীরা সটকে পড়ে। রাসেল বরিশাল বিএম কলেজের শিক্ষার্থী বলে জানা গেছে।ধৃত কাশেমের বাড়ি পার্শ্ববর্তী আমতলী উপজেলায়। গুরুতর আহত রাসেল বরিশাল বিএম কলেজের শিক্ষার্থী বলে জানা গেছে।রাসেলের পরিবারের অভিযোগ ক্ষমতাসীন দলের এক নেতার ইঙ্গিতে রাসেলকে হত্যার জন্য সন্ত্রাসী কাশেমকে ভাড়ায় আনা হয়েছিল।

এ বিষয়ে মহিপুর থানার অফিসার ইন-চার্জ এসএম মাকসুদুর রহমান জানান, গ্রেফতারকৃত কাশেমকে কলাপাড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পুলিশের হেফাজতে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। এ ঘটনায় একটি মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানান তিনি।