গম ও চাল আত্মসাত মামলায় খাদ্য কর্মকর্তার ৬ বছর সশ্রম কারাদন্ড

2

 

স্টাফ রিপোর্টারঃ পটুয়াখালী বিশেষ স্পেশাল জজ আদালতে সরকারী খাদ্য শস্য গম ও চাল আত্মসাত মামলার রায়ে দশমিনা উপজেলা খাদ্য গুদামের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. মোশারেফ হোসেনকে ৬ বছর সশ্রম কারাদন্ড ও ১০হাজার টাকা জরিমানার আদেশ প্রদান করেছেন বিজ্ঞ বিচারক বাসুদেব চন্দ্র রায়।

মামলার সংক্ষিপ্ত বিবরনে জানাগেছে, দশমিনা উপজেলা খাদ্য গুদামের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. মোশারেফ হোসেন কর্মরত অবস্থায় ২৮.১২.২০০২ইং তারিখ হতে ০২.০২.২০০৩ ইং তারিখ পর্যন্ত ওই খাদ্য গুদামের ১৮.২১৫ মে. টন খাদ্য শস্য গম যার সরকারী মূল্য দুই লক্ষ ৭৯ হাজার ৪১৮.১০টাকা ও ১৪.২২৬ মে. টন খাদ্য শস্য  চাল যার সরকারী মূল্য এক লক্ষ ৮৪হাজার ৩৫৭ টাকা আত্মসাত করে। এ ঘটনায় পটুয়াখালী জেলা দুর্নীতি দমন ব্যুরো’র পরিদর্শক আ. রহিম জোয়াদ্দার বাদী হয়ে ২৮.১০.২০০৪ইং তারিখ মামলা দায়ের করেন। দুদক সমন্বিত জেলা কার্যালয় পটুয়াখালীর উপ-পরিচালক আউয়াল মিয়া তদন্ত সাপেক্ষে উক্ত মোশারেফ হোসেনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করেন। উক্ত  বিজ্ঞ বিচারক সাক্ষ্য গ্রহন শেষে ২৪ জুলাই রবিবার জনাকীর্ণ আদালতে ৪০৯ দঃ বিঃ ধারায় ১০ হাজার টাকা জরিমানা সহ ৩ বছর সশ্রম কারাদন্ড ও ১৯৪৭ সালের দুর্নীতি প্রতিরোধ আইনের ৫(১) ধারায় ৩ বছর সশ্রম কারাদন্ডাদেশ দেন। সরকার পক্ষে মামলা পরিচালনা করেন দুর্নীতি দমন কমিশন বিশেষ জজ আদালতের পিপি এ্যাড. গাজী মো. নেছার উদ্দিন এবং আসামী পক্ষে ছিলেন এ্যাড. চন্দন সমাদ্দার।