তালতলীর ৫ ইউপিতে বইছে  নির্বাচনী হাওয়া

2

কে এম সোহেল, আমতলী প্রতিনিধিঃ ইউপি নির্বাচনী তফসিল ঘোষনার পরপরই বরগুনা জেলার তালতলী উপজেলার ৫টি ইউনিয়নে বইছে এখানে নির্বাচনী হাওয়া। এখানকার  মানুষ এখন নির্বাচনমুখী। উপজেলার ৫টি ইউনিয়ন ঘুরে চেয়ারম্যান পদে সম্ভাব্য প্রার্থী হিসেবে যাদের নাম শোনা যাচ্ছে-

১নং পচাঁকোড়ালিয়া ইউনিয়নে সম্ভাব্য চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী হিসেবে তালতলী উপজেলা আওয়ামীলীগ এর সহ-সভাপতি পচাকোড়ালিয়া ইউনিয়ন পরিষদের বর্তমান চেয়ারম্যন মোঃ নজির হোসেন কালু পাটোয়ারী, পচাঁকোড়ালিয়া ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক ভাইস্ চেয়ারম্যন আঃ রশিদ হাওলাদার,  উপজেলা আওয়ামীলীগ এর সাংগঠনিক সম্পাদক আঃ রাজ্জাক হাওলাদার ও পচাঁকোড়ালিয়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ এর সভাপতি আবু জাফর খোকন হাওলাদার ও বিএনপি দলীয় সম্ভব্য প্রার্থীরা হলেন ইউনিয়ন বিএনপির সদস্য মো. বাকিবিল্লাহ সিকদার , ও মো. নান্নু খানের  নাম সম্ভাব্য প্রার্থী  হিসেবে শোনাযাচ্ছে।

২নং ছোটবগী ইউনিয়ন পরিষদে সম্ভাব্য চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী হিসেবে তালতলী উপজেলা আওয়ামীলীগ এর সাধারন সম্পাদক ২নং ছোটবগী ইউনিয়ন পরিষদের বর্তমান চেয়ারম্যান মু.তৌফিকুজ্জামান তনু ,ঠিকাদার আবুল হোসেন হাওলাদার  বিএনপি দলীয় সম্ভব্য প্রার্থী হলেন শেফালী বেগমের নাম সম্ভাব্য প্রার্থী হিসেবে  শোনাযাচ্ছে।

৩নং কড়ইবাড়িয়া ইউনিয়নে সম্ভাব্য চেয়ারম্যান পদপ্রাার্থী হিসেবে তালতলী উপজেলা আওয়ামীলীগ এর সদস্য ও বর্তমান চেয়ারম্যান নুর মোহাম্মদ মাষ্টার,কড়ইবাড়িয়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ এর সভাপতি কৃষ্ণকান্ত  মাঝী,তালতলী উপজেলা আওয়ামীলীগ এর সদস্য মোঃ নান্নু সিকদার, তালতলী উপজেলা আওয়ামীলীগ এর সদস্য মোঃ জসিম উদ্দিন মোল্লা, বরগুনা সরকারী কলেজ এর সাবেক ভিপি মাহামুদ রিয়াদ সামীম, জেলা ছাত্রলীগ এর যুগ্ম সাধারন সম্পাদক অনিমেশ চন্দ্র  হাওলাদার, কড়ইবাড়িয়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ এর ৬নং ওয়ার্ড সভাপতি আঃ ছত্তার কবিরাজ ও পনু সিকদার তবে  বিএনপি দলীয় সম্ভাব্য প্রার্থী হিসেবে  মাওলানা মো. মুনসুর আহমেদেও নাম শোনা যাচ্ছে।

৫নং বরবগী ইউনিয়নে সম্ভাব্য চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী হিসেবে তালতলী উপজেলা আওয়ামীলীগ এর সাবেক সাধারন সম্পাদক ও বর্তমান চেয়ারম্যান মোঃ আলমগীর মিঞা (আলম মুন্সী), তালতলী উপজেলা আওয়ামীলীগ এর সিনিয়র সহ-সভাপতি মোঃ আবুল কাশেম হাওলাদার, তালতলী উপজেলা আওয়ামীলীগ এর  সহ-সভাপতি গাজী  মোঃ কামরুল আহসান, তালতলী উপজেলা আওয়ামীলীগ এর সহ-সভাপতি ও তালতলী উপজেলা বাস্তবায়ন কমিটির সচিব হাজী মোঃ আলম কবির, তালতলী উপজেলা যুবলীগ এর সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ শাহজাহান টুকু, উপজেলা বিএনপি এর সাবেক সাধারন সম্পাদক মোঃ শহিদুল হক হাওলাদার ও উপজেলা যুব দলের সাবেক সভাপতি মোঃ মাহাবুবুল আলম মামুন ও মো. জাকির হোসেন খলিফার   নাম সম্ভাব্য প্রার্থী হিসেবে  শোনাযাচ্ছে।

৬নং নিশানবাড়িয়া ইউনিয়নে সম্ভাব্য চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী হিসেবে তালতলী উপজেলা বাস্তবায়ন কমিটির  সভাপতি ও উপজেলা আওয়ামীলীগ এর সাবেক সভাপতি মোঃ ফজলুল হক জোমাদ্দারের  পুত্র মোঃ তপু জোমাদ্দার, নিশানবাড়িয়া  ইউনিয়ন পরিষদের বর্তমান চেয়ারম্যান মোঃ দুলাল ফরাজী ও উপজেলা বি.এন.পির সহ-সভাপতি ও ৭নং সোনাকাটা ইউপি চেয়ারম্যান ফরাজী মোঃ ইউনুস এরসহ-ধর্মীনী হোসনেয়ারা হাসির  নাম সম্ভাব্য প্রার্থী হিসেবে  শোনাযাচ্ছে।

গত ৮ মার্চ  বুধবার বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন নির্বাচনী তফসিল ঘোষনার পর সন্ধা থেকে গোটা তালতলী উপজেলায় নির্বাচনী হাওয়া বইতে শুরু করেছে । সচেতন ভোটারদের মাঝে ফিরে এসেছে প্রান চাঞ্চল্য। সম্ভাব্য চেয়ারম্যন প্রার্থীরা নিজ নিজ ইউনিয়নে প্রার্থী হিসেবে তাদের পছন্দের দলীয় মনোনায়ন পেতে দলীয়  হাই কমান্ডের কাছে ইতি মধ্যেই দৈড়-ঝাপ শুরু করেছে। বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন এর ঘোষিত তফছিল অনুযায়ী তালতলী উপজেলার ৪নং শারিকখালী ও ৭নং সোনাকাটা ইউনিয়ন পরিষদ বাদে বাকি (পচাকোড়ালিয়া,ছোটবগী,কড়ইবাড়িয়া,বড়বগী ও নিশানবাড়িয়া) ৫টি ইউনিয়ন পরিষদে  আগামী ১৬ই এপ্রিল একযোগে এ সাধারন নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। উপজেলার গ্রাম-গঞ্জের প্রতিটি হাটে-বাজারে চায়ের দোকানে চলছে নির্বাচনী আলোচনা। এলাকার প্রতিটি মানুষ এখন নির্বাচন মুখী।