দেশীয় ও বিদেশী মদ ব্যবসায়ী খোকন চৌধুরীকে আটক করেছে র‌্যাব

4

র‌্যাব-৮, পটুয়াখালী ক্যাম্পের একটি বিশেষ আভিযানিক দল ২২ জানুয়ারি ২০১৭ তারিখ পটুয়াখালী জেলা সদর থানাধীন লঞ্চঘাট এলাকায় অবস্থানকালে পটুয়াখালী সদর থানাধীন চরলাউকাঠি গ্রামস্থ একটি বিশেষ অভিযান পরিচালনা করেন। রবিবার বিকেল পৌনে ৪টায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পটুয়াখালী জেলার পটুয়াখালী সদর থানাধীন চরলাউকাঠি গ্রামস্থ বশির শিকদার এর মুদির দোকান ও ভাতের হোটেল সংলগ্ন দক্ষিণ দুয়ারী পাকা বসত ঘরে অবৈধ মদ বিক্রয় হচ্ছে । প্রাপ্ত সংবাদের ভিত্তিতে ডিএডি মোঃ মিজানুর রহমান এর নেতৃত্বে র‌্যাবের বিশেষ আভিযানিক দলটি ঘটনাস্থলে পৌছলে র‌্যাবের উপস্থিতি টের  পেয়ে  কৌশলে পালানোর চেষ্টাকালে আসামী  মোঃ খোকন চৌধুরী (৩৭) পিতাঃ মৃত আব্দুর রশিদ চৌধুরী, সাং ঃ চরলাউকাঠি (১নং ওয়ার্ড) থানা ও জেলা ঃ পটুয়াখালীকে গ্রেফতার করেন। পরবর্তীতে ধৃত আসামীকে জিজ্ঞাসাবাদ কালে সে জানায় পলাতক আসামী বশির শিকদার এর মদ বিক্রয়কারী হিসাবে ব্যাবসা করে বলে স্বীকার করে। স্বাক্ষীদের উপস্থিতিতে বশির শিকদারের দক্ষিণ দুয়ারী পাকা বসতঘর তল¬াশীকালে আসামীর দেখানোমতে পলাতক আসামী বশির শিকদার এর  শোয়ার খাটের নিচ হতে কাপড়ের শপিং লাল ব্যাগে প্লাস্টিকের কেরু কোম্পানীর দর্শনা লেখাযুক্ত বিভিন্ন রংগের ১৫(পনের) বোতল দেশি মদ এবং গোলাপি শপিং  ব্যাগে কাচের বোতল ডঐওঝকণ  লেখাযুক্ত ০৫(পাঁচ) বোতল ও  চঅঝঝচঙজঞ ঝঈঙঞঈঐ-খকইক ২৫৫৫ লেখাযুক্ত ০১(এক) বোতল বিদেশী মদ আসামী খোকন চৌধুরী  নিজ হাতে বের করে দেয়।

এ ব্যাপারে পটুয়াখালী জেলার সদর থানার মামলা নং-২৮, তাং-২২/০১/১৭ইং,  ১৯৯০ সনের মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রন আইনের ২২ এর(গ) ধারা ০১ টি মামলা হয়েছে । (প্রেস বিজ্ঞপ্তি)