নওমালা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে ঝুঁকি নিয়ে পাঠদান  ঘটতে পারে প্রান হানির মত ঘটনা

3

 

 

ঝুঁকি নিয়ে পাঠদান করাছেন বাউফল উপজেলার নওমালা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের । যে কোন সময় ধষে পরতে পারে নওমালা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শ্রেণী কক্ষের ছাদ ঘটতে পারে বড় ধরনের দূর্ঘটনা। শ্রেনী কক্ষের সল্পতার কারনে ঝুঁকি নিয়ে পাঠদান করাচ্ছেন স্কুল কতৃপক্ষ।

১৯৬৮ সালে প্রষ্ঠিত হয় নমালা মাধ্যমিক বিদ্যালয় বিদ্যালয়ের উদ্যগতা ছিলেন আঃ আজিজ হাওলাদার অত্র ইউনিয়নের প্রথম মেট্রিকুলেশন এবং সাথে ছিলেন মকবুল আহম্মেদ মুন্সি।বিদ্যালয়টি ১ একর ৭৮ শতাংশ জমির ৫০ শতাংশ জমিদান করলেন প্রতিষ্ঠাকালীন সভাপতি মোতাহার উদ্দিন তালুকদার ও ৫০ শতাংশ জমি দিলেন বাসের আলী হাওলাদার বাকী সম্পত্তি দিলেন এলাকার লোকজন।অনেক চড়াই উৎরাইয়ের মধ্যে দিয়ে আজকের এ বিদ্যালটি দাড়িয়েছে।১৯৯৬ সালে স্কুল ভবন তৈরী হয় পরবর্তীতে ২০১২ সালে ২য় তলা নির্মান করা হয় বর্তমানে  ভবনের শ্রেনী কক্ষসহ বিভিন্ন স্থানে ফাটলদেখা দিয়েছে বেশ কিছু স্থানে ভেঙ্গে গিয়েছে ছাদের বড় বড়  অংশ, ফাটল দেখায় সবাই আতঙ্কে আছে।

বিদ্যালয়ের শিক্ষক,ছাত্র ছাত্রী,অভিবাক ও স্থানীয়দের দাবী দীর্ঘ দিন পযর্ন্ত বিদ্যালয়ের শিক্ষক মিলনায়তন কক্ষ শ্রেণী কক্ষ বহিঃ অংশের অনেক গুলো স্থানে বিশাল আকারে ফাটল দেখা দিয়েছে, কিছু অংশ ভেঙ্গে পরেছে।আর শ্রেনী কক্ষের ভিতরে ছাত্ররা যেখানে পাঠদান করছেন তাতে বড় ধরনের ফাটল দেখাদেয়ায় তারা আতঙ্কের ভিতরে আছেন। উর্ধতন কতৃপক্ষের কাছে তাদের দাবী অচিরেই বিদ্যালয়ের ভবন মেরামত না করলে যে কোন সময় বড় ধরনের দূর্ঘটনা ঘটতে পারে।