পটুয়াখালীতে মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস পালিত

1

র্স্টাফ রিপোর্টারঃ পটুয়াখালী জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উদযাপন উপলক্ষে ২৫মার্চ সকাল ১০টায় শিশু একাডেমী মিলনায়তনে  শিশুদের জন্য মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়েছে। ২৬মার্চ  প্রত্যূষে পুলিশ লাইন চত্বর ৩১ বার তোপধ্বনির মাধ্যমে দিবসের শুভ সূচনা করা হয়। সকাল ৬টায় স্মৃতিসৌধে ও শহীদ মুক্তিযোদ্ধাদের স্মৃতিফলকে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন জেলা প্রশাসক,একেএম শামিমুল হক ছিদ্দিকী,জেলা পরিষদ প্রশাসক খান মোশারফ হোসেন, পুলিশ সুপার সৈয়দ মোসফিকুর রহমান, সদর উপজেলা পরিষদ চেয়রম্যান এ্যাড. মোঃ তারিকুজ্জামান মনি, জেলা আওয়ামী লীগ,পটুয়াখালী প্রেসক্লাব । সূর্যোদয়ের সাথেসাথে সকল সরকারি, আধা সরকারি, স¦ায়ত্তশাসিত এবং বেসরকারি ভবনে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়।পিডিএসএ মাঠ সকাল ৮ পুলিশ, কারারক্ষী, আনসার ও ভিডিপি, বিএনসিসি,রোভার স্কাউট, বয়স্কাউট, গার্লস গাইড এবং বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান আনুষ্ঠানিকভাবে জাতীয় পতাকা উত্তোলন কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন জেলা প্রশাসক,একেএম শামিমুল হক ছিদ্দিকী। সকাল সাড়ে ১০টায়  জেলা সদরের গণকবর জিয়ারত করা হয়। স্থানীয় সিনেমা হলে  মুক্তিযুদ্ধ ভিত্তিক চলচ্চিত্র প্রদর্শনী দেখানো হয়েছে।জেলা তথ্য অফিস এর উদ্যোগে  বেলা ১১টা থেকে জেলা সদরের উল্লেখযোগ্য স্থানে দেশাত্ববোধক ভ্রাম্যমাণ সংগীত পরিবেশন করা হয় ।বেলা সাড়ে ১১টায় শিল্পকলা একাডেমি মিলনায়তনে বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে।বাদ যোহর ও সুবিধাজনক সময়ে সকল মসজিদ, মন্দির, গীর্জা, প্যাগোডা  এবং অন্যান্য উপাসনালয় জাতির শান্তি, সমৃদ্ধি ও অগ্রগতি কামনা করে মসজিদে বিশেষ মোনাজাত এবং মন্দির, গীর্জা, প্যাগোডা ও অন্যান্য উপাসনালয়ে প্রার্থনা করা হয় । দুপুরে হাসপাতাল,  জেলখানা, এতিমখানা, সরকারী শিশু পরিবার, বৃদ্ধাশ্রম উন্নত মানের  খাবার পরিবেশন করা হয়। বিকাল ৪টায় সার্কিট হাউজ চত্ত্বরে মহিলাদের অংশগ্রহণে মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক আলোচনা সভা ও ক্রীড়া প্রতিযোগিতা অনুািষ্ঠত হয়েছে ।বিকেল ৪টায় পিডিএসএ মাঠ থেকে বয়স্কদের হাঁটা প্রতিযোগিতা। বিকাল সাড়ে ৪টায় পিডিএসএ মাঠে  জেলা প্রশাসন একাদশ বনাম পৌরসভা একাদশ,এবং লালদল বনাম সবুজদল প্রীতি ফুটবল প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়। সন্ধ্যা পৌনে ৭টায় জেলা শিল্পকলা একাডেমী মিলনায়তনে সুখী, সমৃদ্ধ, ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত বাংলাদেশ গঠনের লক্ষ্যে ডিজিটাল প্রযুক্তির সার্বজনীন ব্যবহার শীর্ষক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। রাত ৮টায়  জেলা শিল্পকলা একাডেমী মিলনায়তনে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। এছাড়া গুরুত্বপূর্ণ সরকারি, আধা-সরকারি, স্বায়ত্তশাাসিত এবং বেসরকারি ভবন/স্থাপনাসমূহে আলোকসজ্জা করা হয়েছে।