বাউফলে শিক্ষা কর্মকর্তাকে হুমকির প্রতিবাদে মানববন্ধন

0

নীনা আফরীন, পটুয়াখালী : পটুয়াখালীর বাউফল উপজেলা সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা মো. মঈনুল ইসলামকে দেখে নেয়ার হুমকি দেয়া হয়েছে। এ ঘটনার প্রতিবাদে বিভিন্ন বিদ্যালয়ের শতাধিক শিক্ষক ও কর্মচারীরা সোমবার দুপুরে উপজেলা চত্বরে মানব বন্ধন কর্মসূচী পালন করেছেন।

 

গতকাল বেলা ১১ টার দিকে প্রকাশ্যে উপজেলা চত্বরে মুক্তিযোদ্ধা ও স্বাধীনতা মঞ্চের সামনে ওই শিক্ষা কর্মকর্তাকে উপজেলা বিএনপির সাবেক তথ্য ও গবেষনা বিষয়ক সম্পাদক এবং জেলা বিএনপির সাবেক সহ ত্রান বিষয়ক সম্পাদক, দৈনিক জনকন্ঠের স্থানীয় প্রতিনিধি কামরুজ্জামান বাচ্চু এই হুমকি দেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

 

বিভিন্ন বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, যথাসময়ে বাউফল উপজেলার ২৩০ টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৪র্থ ও ৫ম শ্রেণির শিক্ষার্থীরা বাংলাদেশ ও বিশ্ব পরিচয়, প্রাথমিক বিজ্ঞান এবং ইসলাম ও নৈতিক শিক্ষা এই তিন বিষয়ের নতুন পায়নি। রোববার ওই তিন বিষয়ের বই এসে উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তার কার্যালয়ে এসে পৌঁছায়।

 

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, গতকাল উপজেলা সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা মো. মঈনুল ইসলাম কয়েকজন শিক্ষক ও কর্মচারীদের নিয়ে নতুনভাবে আসা ওই বইগুলো উপজেলার ২৩০ টি বিদ্যালয়ের চাহিদা অনুযায়ী বন্টন করছিলেন। গতকাল বেলা আনুমানিক ১১ টার দিকে বিএনপি নেতা কামরুজ্জামান বাচ্চু এসে পঞ্চম শ্রেণির তিনটি বই দাবি করেন। তখন সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা মো. মঈনুল ইসলাম মোট বইয়ের হিসাব না মিলিয়ে বই দিতে রাজি হননি। এতে ক্ষুদ্ধ হন কামরুজ্জামান বাচ্চু। পরে সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তাকে উদ্দেশ্য করে বিভিন্ন অসৌজন্যমূলক অঙ্গ-ভঙ্গি প্রদর্শন করেন এবং দেখে নেয়ার হুমকি দিয়ে মটরসাইকেল যোগে স্থান ত্যাগ করেন।

 

খবর পেয়ে বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষকরা এসে এ ঘটনার প্রতিবাদে উপজেলা চত্বরে মানব বন্ধন করেন।

 

সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা মো. মঈনুল ইসলাম সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, বিষয়টি সঙ্গে সঙ্গেই উপজেলা চেয়ারম্যান ও ইউএনও মহোদয়কে জানানো হয়েছে। তবে এ অভিযোগ অস্বীকার করেন বিএনপি নেতা কামরুজ্জামান বাচ্চু।##