সাঙ্গ হলো সুন্দরম নাট্যমঞ্চের নাট্য কর্মশালা

1

স্টাফ রিপোর্টার ঃ জীবন নাটকে আসুক, নাটক জীবনে মিশুক এই শ্লোগানকে সামনে রেখে শেষ হলো সুন্দরম নাট্যমঞ্চ আয়োজিত নাট্য কর্মশালা। বুধবার সন্ধ্যায় সুন্দরম কার্যালয়ে আয়োজিত সমাপনি অনুষ্ঠানে সনদপত্র বিতরন ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মধ্যেদিয়ে সাত দিন ব্যাপী এ কর্মশালার সমাপ্তি ঘটে। পটুয়াখালীর অন্যতম সাংস্কৃতিক সংগঠন সুন্দরমের শাখা সংগঠন সুন্দরম নাট্য মঞ্চের আয়োজনে কর্মশালার সমাপনি অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে সনদপত্র বিতরন করেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক সার্বিক মো: সোহরাব হোসেন। সুন্দরমের অবিভাবক, উপদেষ্টা ও পৃষ্ঠপোষক বীর মুক্তিযোদ্ধা মানস কান্তি দত্তের সভাপতিত্বে ও সুন্দরমের সমন্বয়কারী, নাট্য কর্মশালার মূখ্য প্রশিক্ষক এবং সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট পটুয়াখালী জেলা শাখার সাধারন সম্পাদক মুজাহিদুল ইসলাম প্রিন্সের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট বকুল চন্দ্র কবিরাজ, সুন্দরমের অন্যতম উপদেষ্টা, পৃষ্ঠপোষক ও জেলা আওয়ামী লীগের শ্রম বিষয়ক সম্পাদক গাজী হাফিজুর রহমান শবীর, সুন্দরমের উপদেষ্টা, পৃষ্ঠপোষক ও জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারন সম্পাদক এ্যাড. উজ্জ্বল কুমার বসু, শিশু একাডেমীর জেলা সংগঠক মোস্তফা কামাল, পৌর কাউন্সিলর দেলোয়ার হোসেন আকন। আরও উপস্থিত ছিলেন সুন্দরমের সাধারন সম্পাদক তরিকুল ইসলাম রুবেল, নির্বাহী সমন্বয়কারী সুজয় চক্রবর্তী, সমন্বয়কারী ও সংগঠক মিঠুন পাল বান্টি, সমন্বয়কারী কৌশিক দাস টিটু, ইতি রানী দাস প্রমুখ।

নাট্য কর্মশালার সমাপনি অনুষ্ঠানে ২০জন নাট্যকর্মীকে কর্মশালা সফল ভাবে সমাপ্ত করায় সনদপত্র প্রদান করা হয়। এ সময় গত ১১ মে পিপলস থিয়েটার আয়োজিত জাতীয় শিশু-কিশোর নাট্যৎসবে অংশগ্রহনকরী সুন্দরম চিলড্রেনস থিয়েটারের নাট্যকর্মীদের হতে সনদপত্র তুলে দেন প্রধান অতিথি।

পরিশেষে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশন করে সুন্দরমের সদস্যরা।